নড়াইল প্রতিনিধি খন্দকার সাইফুলঃ মহান স্বাধীনতা যুদ্ধে শহীদ মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ বুদ্ধিজীবীদের নিয়ে
বিরুপ মন্তব্য করার অভিযোগে নড়াইলে দায়ের করা প্রথক দুটি মানহানি মামলায় বিএনপি
চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া ও স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বও চন্দ্র রায়ের বিরুদ্ধে
গেস্খফতারি পরোয়ানা জারি করেছেন নড়াইলের সদর আমলী আদালতের বিচারক আমাতুল
মোর্শেদা। বুধবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে এ আদেশ দেন তিনি।
মামলার বিবরণে অভিযোগকারি শেখ আশিক বিল্লাহ অভিযোগ করে বলেন, গত ২০১৫ সালের ২১
ডিসেম্বর সন্ধ্যায় ঢাকার একটি সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বেগম খালেদা জিয়া
স্বাধীনতা যুদ্ধে ৩০ লাখ শহীদদের সংখ্যা নিয়ে এবং বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে
বিরপ মন্তব্য করেন। এ বিষয়টি তিনি ও মামলার স্বাক্ষীরা ২২ ডিসেম্বর বিভিন্ন পত্রিকায় পড়ে
মারাত্মকভাবে ক্ষুব্ধ হন এবং তাদের এক কোটি টাকা মানহানি হয়েছে মর্মে ২০১৫ সালের ২৯
ডিসেম্বর নড়াইল আমলী আদালতে মামলা দায়ের করেন।
এছাড়া একই ব্যক্তি বাদী হয়ে গত ২০১৫ সালের ২৫ ডিসেম্বর ঢাকার একটি অনুষ্ঠানে গয়েশ্বর
চন্দ্র রায় শহীদ বুদ্ধিজীবীদের নিয়ে বিরুপ মন্তব্য করার অভিযোগে ২০১৫ সালের ২৯ ডিসেম্বর
নড়াইল সদর আমলী আদালতে মামলা দায়ের করেন। মামলা দুটির সমন জারি হয়ে ফেরত আসায় এবং
আসামীরা আদালতে উপস্থিত না হওয়ায় তাদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন নড়াইল
সদর আমলী আদালতের বিচারক আমাতুল মোর্শেদা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here